সর্বশেষআঞ্চলিক

গৃহবধূ ধর্ষণের লিখিত অভিযোগ ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে

গৃহবধূ ধর্ষণের অভিযোগ লালমনিরহাট সদর উপজেলার কুলঘাট ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সোলেমান আলীর (৩০)বিরুদ্ধে

এ ব্যাপারে ভুক্তভোগী গৃহবধূ মঙ্গলবার রাতে লালমনিরহাট সদর থানায় লিখিত অভিযোগ করেন। তবে বুধবার বিকেল পর্যন্ত এ ঘটনায় মামলা হয়নি।

গৃহবধূর ধর্ষণের ছাত্রলীগ

গত শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

লিখিত অভিযোগে বলা হয়, সোলায়মান আলী সনাতন দীর্ঘদিন ধরে ওই গৃহবধূকে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ওই গৃহবধূর স্বামী বাড়িতে ছিলেন না। এ সময় সোলায়মান ঘরে ঢুকে তাকে ধর্ষণ করে। পরে তার চিৎকার শুনে স্থানীয় কয়েকজন বাড়ির দরজায় এসে সোলায়মান পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু স্থানীয় লোকজন তাকে ধরে ফেলে। পরে সুলেমানের লোকজন এসে তাকে তুলে নিয়ে যায়।

অভিযোগে আরও বলা হয়, ওই দিন ওই গৃহবধূর স্বামী বাড়িতে এসে মামলা করতে চান। কিন্তু সোলায়মান আলীর লোকজন ওই রাতে গৃহবধূ ও তার স্বামীর কাছ থেকে জোর করে ১০০ টাকা মূল্যের তিনটি নন-জুডিশিয়াল স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নেয়। পরে তাকে এলাকা ছেড়ে যেতে বলা হয়। এরপর প্রাণের ভয়ে ওই দম্পতি এলাকা ছেড়ে চলে যান। পরে মঙ্গলবার রাতে স্বামীকে নিয়ে থানায় পৌঁছে সোলায়মান আলীর বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ করেন তিনি।

গৃহবধূ ধর্ষণ
অভিযুক্ত সোলায়মান আলী সবুজ

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. উমর ফারুক জানান, মঙ্গলবার রাতে তিনি এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ পেয়েছেন। এখনো কোন মামলা দায়ের করা হয়নি। তদন্ত সাপেক্ষে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

গৃহবধূ ধর্ষণে সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি এনামুল হক জানান, গত ২৩ সেপ্টেম্বর সদর উপজেলার কুলাঘাট ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করা হয়। তিনি ঘটনাটি শুনেছেন। কিন্তু তিনি আউট। এলাকায় গিয়ে সবার সঙ্গে কথা বলে ব্যবস্থা নেবেন।

হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সদর উপজেলা সভাপতি বিদুভূষণ রায় বলেন, গৃহবধূদের ধর্ষণের সঙ্গে জড়িত ব্যক্তিকে আইনের আওতায় আনতে হবে। অন্যথায় তারা সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে বাধ্য হবে।

আরও পড়ুন

সিলেটে পুলিশের হেফাজতে রায়হান হত্যায় সাক্ষ্য দিলেন পুলিশ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button