সর্বশেষঅন্যান্য

গাজীপুরে পিটিয়ে হত্যা,দুই ভাই নিহত,কারণ নিয়ে ভিন্ন বক্তব্য

দুই ভাইকে পিটিয়ে হত্যা, কারণ নিয়ে ভিন্ন বক্তব্য পরিবার ও স্থানীয়দের

গাজীপুরে মহানগরীতে দুই ভাইকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। গতকাল সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে নগরীর বাংলাগাছ বাঁশপাতি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

গাজীপুরে

রাত সাড়ে ৯টার দিকে পুলিশ লাশ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুরে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।নিহত ময়মনসিংহের নান্দাইল থানার মহিষকুড়া এলাকার আবুল কাসেমের ছেলে। শফিকুল ইসলাম (৩২) ও তার ভাই মো. শুক্কুর আলী (২৮)। তারা নগরীর ২৫ নম্বর ওয়ার্ডের ভুরুলিয়া এলাকার আব্দুল রশিদের বাড়ির ভাড়াটিয়া।

পরিবারের সদস্যদের দাবি, বকেয়া টাকা আদায় করতে গিয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় দুই ভাই নিহত হয়েছেন। এদিকে, স্থানীয়দের দাবি, দুই ভাই একটি দল নিয়ে দোকানে হামলা করতে এলে পিটিয়ে হত্যা করা হয়।নিহতের বড় ভাই আমিরুল ইসলাম জানান, তার ভাই শফিকুল ইসলাম বলাকা বাসের সহকারী হিসেবে কাজ করতেন।গাজীপুরে শুক্কুর আলী একজন অটোরিকশা চালক ছিলেন। কয়েকদিন আগে বাংলাগাছ এলাকার হিমেল, সুমন ও রাসেল এই দুজনের কাছ থেকে ১০ হাজার টাকা ধার নেয়।

আগামীকাল টাকা পরিশোধ করার কথা ছিল। ওই টাকা আনতে শফিকুল ও শুক্কুর একটি অটোরিকশায় করে বাংলাগাছ এলাকায় যান। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে দুই ভাইকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করা হয়।নিহত শফিকুলের স্ত্রী সুমাইয়াও একই দাবি করেছেন।গাজীপুরে তিনি জানান, বাংলাগাছ এলাকার এক দোকানদারের সঙ্গে টাকা নিয়ে বিরোধ চলছিল। সেই ঝগড়ার জেরে স্বামী ও শ্যালক মারা যান।

গাজীপুরে

পুলিশ বলছে, নিহত দুই ভাইয়ের বিরুদ্ধে থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। গত মঙ্গলবার লাঞ্ছিত মামলায় জামিনে কারাগার থেকে মুক্তি পান তিনি।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, গতকাল শফিকুল ও শুক্কুরসহ ২০ থেকে ২৫ জন অটোরিকশায় করে বাংলাগাছ বাঁশপট্টি এলাকায় দুটি দোকানে হামলা চালায়। পরে তার চিৎকার শুনে স্থানীয় লোকজন ছুটতে থাকে। একসময় তারা স্থানীয় লোকজনের ওপর হামলা করলেও স্থানীয় লোকজনও দুই ভাইকে ধাওয়া করে মারধর করে। ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। ঘটনার পর দোকানপাট বন্ধ করে সবাই চলে যায়। একজনের লাশ রাস্তার মাঝখানে, অন্যজনের লাশ পড়ে ছিল রাস্তার পাশে।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে লাশটি হেফাজতে নেয়। পুলিশ ছাড়াও পিবিআই ও সিআইডি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জিয়াউল হক বলেন, কেন ও কারা হত্যা করেছে তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। স্থানীয় লোকজন বলছে নিহত দুজনই সন্ত্রাসী। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আরও পড়ুন

ট্রেনে কাটা পড়ে সিলেটে আওয়ামী লীগ নেতার মৃত্যু

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button