রাজনীতিসর্বশেষ

খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে সমমনা জাতীয়তাবাদী জোটের অনশন

খালেদা জিয়ার তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে সংসদ নির্বাচন ও বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে অনশন কর্মসূচি পালন করেছে সমমনা জাতীয়তাবাদী জোটের নেতাকর্মীরা।

খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে সমমনা জাতীয়তাবাদী জোটের অনশন

শনিবার রাজধানীর পুরাতন পল্টনে অবস্থিত আল রাজী কমপ্লেক্সের সামনে এ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।অনশন কর্মসূচিতে নেতা-কর্মীরা জানান, বিদেশে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছে দলটি। কিন্তু সরকার শুনছে না। তিনি অবিলম্বে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠানোর দাবি জানান।

ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) সভাপতি ফরিদুজ্জামান ফরহাদ বলেছেন, এই সরকার যখনই ক্ষমতায় এসেছে তখনই মানুষের সমস্যা বেড়েছে। অক্টোবরে কেন এত প্রকল্পের উদ্বোধন করছেন শেখ হাসিনা? কারণ শেখ হাসিনা জানেন তিনি আর ক্ষমতায় আসতে পারবেন না। তিনি বলেন, সুষ্ঠু নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন হতে হবে। সংসদ ভেঙে দিতে হবে। এটা না করে সরকার দেশকে গৃহযুদ্ধের দিকে ঠেলে দিচ্ছে।

এই জোটের অন্য দলগুলো হলো খন্দকার লুৎফর রহমানের নেতৃত্বাধীন ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক পার্টি (জাগপা) এবং এস এম শাহাদাত হোসেন, সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি ও মো. ডেমোক্রেটিক লীগের নেতৃত্বে ছিলেন আকবর হোসেন, পিপলস লীগের নেতৃত্বে ছিলেন গরীবে নেওয়াজ ও সৈয়দ মেহবুব হোসেন, ইসলামী ঐক্যজোটের নেতৃত্বে ছিলেন আবদুর রকিব ও আবদুল করিম, খালেদা জিয়ার বাংলাদেশ ন্যাপের নেতৃত্বে ছিলেন এমএন শাওন সাদেকী ও দিলীপ কুমার দাস, বিকল্প ধারা বাংলাদেশের নেতৃত্বে ছিলেন।

নুরুল আমিন বেপারী ও শাহ মো. আহমেদ বাদল, গোলাম মাওলা চৌধুরী ও আবু সৈয়দের নেতৃত্বে এটিএম গণদল, আজহারুল ইসলাম ও গোলাম মোস্তফা আকন্দের নেতৃত্বে নুরুল ইসলাম কমিউনিস্ট পার্টি, নেপ ভাসানী ও সুকৃতি মণ্ডলের নেতৃত্বে বাংলাদেশ মাইনরিটি পার্টি।

আরও পড়ুন

খালেদা জিয়া কে কেবিনে স্থানান্তর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button